Blog

Importance of Measuring Blood Pressure: History Behind diagnosis: 04

প্রথমটা এক ভাইয়ের অভিজ্ঞতা থেকে শেয়ার করছি। উনি বেশ কয়েকজন বয়স্ক পেশেন্ট পেয়েছেন যাঁদের “recurrent fall” এর হিস্ট্রি ছিল এবং এই সমস্যা নিয়ে তাঁরা অনেক বড় বড় স্যারদের চেম্বারও ঘুরে এসেছেন, ECG, CT Scan, MRI সহ অনেক টেস্ট করিয়েছেন কিন্তু সমস্যা এখনো রয়েই গেছে! অনেকে আবার Vertigo বা, Anxiety Disorder এর ট্রিটমেন্টও পেয়েছেন।

ভাই যেটা করেছেন সিম্পলি দুই সেটিং এ(বসে এবং দাঁড়িয়ে) তাঁদের ব্লাড প্রেসার চেক করেছেন এবং ডায়াগনোসিস করেছেন “Postural Hypotension”. তাদের মধ্যে অনেকে ডায়াবেটিক পেশেন্ট ছিলেন, সুতরাং অনেকেরই ডায়াবেটিক নিউরোপ্যাথির কারনেই এমনটা হয়েছিল।কিন্তু সামান্য “ব্লাড প্রেসার” টাই আসলে ঠিকমত চেক করেন নি কেউ!


আরেকটা ঘটনা আমাদের মেডিসিন ওয়ার্ডের। ১৪/১৫ বছরের এক বাচ্চা। তার দীর্ঘদিন যাবত মাথা ব্যাথা। খুলনা থেকে ঢাকা, ঢাকা থেকে ভারত, মোটামুটি সবজায়গার ডাক্তার দেখানো শেষ, রিলিভেন্ট অনেক ইনভেস্টিগেশন করানো হয়েছে কিন্তু সমস্যা রয়েই গেল। পেশেন্ট আবার বাড়িতে এসে কিছুদিন পর খুলনা মেডিকেল কলেজ হসপিটালে ভর্তি হল। রাউন্ডে কী মনে করে যেন, স্যার (প্রফেসর) বাচ্চাটার বিপি চেক করতে বললেন। দেখা গেল “হাই ব্লাড প্রেসার”। এরপর কয়েক সেটিং এ ব্লাড প্রেসার চেক করে ডায়াগনোসিস হল “হাইপারটেনসন”! এন্টি হাইপাটেন্সিভ ড্রাগ শুরু করার পর বাচ্চার সমস্যা অনেকটাই কমে আসে। পরবর্তীতে হাইপারটেনসনের কারন খোঁজার জন্য রিলিভেন্ট কিছু ইনভেস্টিগেশন করা হয় কিন্তু সব রিপোর্টই নরমাল আসে। তাই “Essential Hypertension” ধরে নিয়েই বাচ্চাটা কে রিলিজ দিয়ে দেয়া হয়।
এত এত জায়গায় দেখানো হলেও কেউ আসলে খেয়াল করে বাচ্চাটার ব্লাড প্রেসার চেক করেন নি/বিষয়টা কে গুরুত্ব দেন নি।


বি: দ্র: “ব্লাড প্রেসার” নিয়ে আপনাদের এরকম অভিজ্ঞতা থাকলে, সবার জানার/সচেতন হওয়ার স্বার্থে শেয়ার করার অনুরোধ রইল।

Dr. Fahim
Khulna Medical College
2012-2013

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *